Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

রেসলিংয়ে আর দেখা যাবে না প্রিয় তারকা ‌‌‘দ্য রক’কে

শৈশবে রেসলিং দেখেননি, এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। ক্রিকেট-ফুটবলের পাশাপাশি দ্য রক, স্টিভ অস্টিন, আন্ডারটেকারদের মতো রেসলারদের দেখে বড় হয়েছেন অনেকে। তাদের অনেকের প্রিয় তারকাও ছিলেন দ্য রক। তবে ভবিষ্যতে আর রেসলিংয়ের রিংয়ে দেখা যাবে না ‌‘দ্য রক’ খ্যাত ডোয়াইন জনসনকে। ডব্লিউডব্লিউই থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায় নিয়েছেন তিনি।

ডব্লিউডব্লিউইর আটবারের চ্যাম্পিয়ন বলেন, ‘আমি রেসলিংটা মিস করব, এটাকে আমি অনেক ভালোবাসি। আমি নিঃশব্দে রেসলিং থেকে অবসর নিয়েছিলাম কারণ সেখানে বেশ ভালো একটি ক্যারিয়ার ছিল এবং যেভাবে আমি শেষ করতে চেয়েছি সেভাবেই আমি শেষ করেছি। এই দর্শক, দর্শকের ভিড়, এই মাইক্রোফোনের মতো আর কিছুই নেই।’

২০১৬ সালে ওয়াট ব্রাদার্সের এরিক রোয়ানের বিপক্ষে রেসলিংয়ের রিংয়ে সবশেষ লড়েছিলেন রক। ৪৭ বছর বয়সী এই রেসলার ও অভিনেতা তার নতুন সিনেমা ‘ফাস্ট অ্যান্ড ফিউরিয়াস প্রেজেন্টস: হবস অ্যান্ড শ’ এর প্রোমোটিং নিয়ে গত সপ্তাহ থেকে ব্যস্ত সময় পার করছেন।

হলিউডের সিনেমাপ্রেমী দর্শকদের কাছে রক এখন আকর্ষণীয় নাম। এক সময়ের রেসলিংয়ের জনপ্রিয় ‘দ্য রক’ এখন সিনেমাজগতেও আলোচিত তারকা। রেসলিংয়ের মতো সিনেমাতেও বাজিমাত করেছেন তিনি।

২০০১ সালে ‘দ্য মাম্মি রিটার্নস’ ছবিতে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে হলিউডে যাত্রা শুরু করেন রক। এরপর প্রায় অর্ধশতাধিক ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। যার মধ্যে ‘ফাস্ট অ্যান্ড ফিউরিয়াস’ সিরিজসহ বেশ কয়েকটি ছবি বক্স অফিসে সাফল্য পেয়েছে। ২০০২ সালে ‘দ্য স্করপিয়ান কিং’ ছবিতে সাড়ে পাঁচ মিলিয়ন ডলার পারিশ্রমিক নিয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন। ২০১৬ সালে হলিউডের সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক পাওয়া অভিনেতা ছিলেন রক। তার অভিনীত সাড়া ফেলানো ছবির মধ্যে আছে ‘জুমানজি : ওয়েলকাম টু দ্য জঙ্গল’, ‘র‌্যামপেজ’।

২০১৯ ফোর্বস ম্যাগাজিনের প্রকাশিত তালিকায় সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক প্রাপ্ত অভিনেতাদের মধ্যে শীর্ষস্থান দখল করেন দ্য রক। বছরে তার আয় ১২৪ মিলিয়ন ডলার। সম্প্রতি ২০১৯ সালে ইনস্টাগ্রাম থেকে সবচেয়ে বেশি আয় করা ব্যক্তিদের তালিকা প্রকাশ করেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম বিষয়ক প্রতিষ্ঠান হপার এইচকিউ। এ তালিকার শীর্ষ ছয়ে আছেন রক। ইনস্টাগ্রামে তার ফলোয়ার ১৫ কোটির বেশি।

 

Print Friendly, PDF & Email