Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

ভিয়েতনামে আটকেপড়াদের ফেরাতে বিশেষ ফ্লাইট

 

অবশেষে ভিয়েতনামে আটকে পড়া বাংলাদেশিদের দেশে ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এই জন্য একটি বিশেষ ফ্লাইটেরও ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, এখন পর্যন্ত হ্যানয়ে ৬৮ জন বাংলাদেশি অবস্থান করছেন। আরও কিছু বাংলাদেশি যারা বিভিন্ন প্রদেশে আটকে আছেন, তারাও এ ফ্লাইটে আসতে পারেন। এরই মধ্যে তাদের নিবন্ধন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়েছে।

ভিয়েতনামে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত সামিনা নাজ গণমাধ্যমকর্মীদের বলেন- অনলাইনে নিবন্ধনও শেষ হয়েছে। ইতিমধ্যে তাদের ফেরত পাঠানোর জন্য ঢাকা ও ভিয়েতনাম সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে।

কবে নাগাদ তারা দেশে ফিরতে পারে জানতে চাইলে রাষ্ট্রদূত বলেন, আমরা দ্রতই পাঠানোর চেষ্টা করছি। নিবন্ধন শেষ হওয়ার পরে বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা ও উভয় সরকারের অনুমোদনসহ আরও কিছু টেকনিক্যাল বিষয় আছে। সেগুলোর প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।

তিনি বলেন, ভিয়েতনাম সরকার ইতোমধ্যে আমাদের জানিয়েছে আরও কয়েকটি প্রদেশে কিছু বাংলাদেশি তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করে জানিয়েছে তারা ফেরত যেতে চায়। আমরা বিষয়গুলো নিয়েও কথা বলেছি। ফেরত আসার পুরো তালিকা তৈরি হওয়ার পরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন সাপেক্ষে তাদের ফেরত পাঠানো হবে। হ্যানয়ে আটকে পড়া ৬৮ জনের মধ্যে ৬৭ জনের বিএমইটি কার্ড আছে। কিন্ত এদের বেশিরভাগ পর্যটক ভিসা। কয়েকজন আছেন বিনিয়োগকারী ভিসায় ভিয়েতনামে এসেছেন।

এখন পর্যন্ত চীনের উহান থেকে ৩০৪ শিক্ষার্থীকে জরুরী ভিত্তিতে সরকারি খরচে ফিরিয়ে নিয়ে আসা ছাড়া অন্য ২০ হাজারেরও বেশি বাংলাদেশির কাউকে সরকারি খরচে ফিরিয়ে আনা হয়নি। ভিয়েতনামে আটকাপড়াদেরকেও একই সমান গুরুত্ব দিয়ে দেশে ফিরিয়ে আনার প্রক্রিয়া চলছে। তবে এদেরকেও নিজ খরচেই আসতে হবে।

Print Friendly, PDF & Email